দ্বিতীয় বার পেছালো রেইনট্রি হোটেলে ধর্ষণের মামলার রায়

দ্বিতীয় বার পেছালো রেইনট্রি হোটেলে ধর্ষণের মামলার রায়

শেয়ার করুন

Rain tree।। নিজস্ব প্রতিবেদক ।।
বনানীর রেইনট্রি হোটেলে জন্মদিনের পার্টিতে দুই ছাত্রীকে ধর্ষণের মামলার রায় দ্বিতীয় বারের মতো পেছালো আদালত। এ মামলার আসামি আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদের ছেলে সাফাত আহমেদসহ পাঁচজন।

আজ বুধবার (২৭ অক্টোবর) ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৭ এর বিচারক মোসাম্মৎ কামরুন্নাহারের এ মামলার রায় ঘোষণা করার কথা ছিল। কিন্তু এ দিন প্রবীণ আইনজীবী আবদুল বাসেত মজুমদার মারা যাওয়ায় আদালতের কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। তাই এ মামলার রায় আজ ঘোষণা করা হবে না বলে আদালতের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

এর আগে ১২ অক্টোবর রায় ঘোষণার জন্য দিন ধার্য ছিল। কিন্তু বিচারক অসুস্থ থাকায় রায় পিছিয়ে ২৭ অক্টোবর দিন ধার্য করেন ট্রাইব্যুনাল।

মামলার এজাহার থেকে জানা যায়, ২০১৭ সালের ২৮ মার্চ রাত ৯টা থেকে পরদিন সকাল ১০টা পর্যন্ত হোটেলে জন্মদিনের পার্টিতে দুই ছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণ করা হয়। এ ঘটনায় ওই বছরের ৬ মে সাফাতসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে বনানী থানায় ধর্ষণ মামলা করেন ভুক্তভোগীরা।

তদন্ত শেষে ২০১৭ সালের ৭ জুন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের উইমেন সাপোর্ট অ্যান্ড ইনভেস্টিগেশন ডিভিশনের (ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টার) পরিদর্শক ইসমত আরা এমি পাঁচ আসামির বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।