নারায়ণগঞ্জে কারফিউ জারি করতে প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ আইভীর

নারায়ণগঞ্জে কারফিউ জারি করতে প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ আইভীর

শেয়ার করুন

IVY

 

নারায়ণগঞ্জ সিটি এলাকা জরুরি ভিত্তিতে লকডাউন করে কারফিউ জারি করার জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন মেয়র সেলিনা হায়াৎ আইভী। অন্যথায় করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করেছেন তিনি।

রোববার (০৫ এপ্রিল) সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল আমিন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ অনুরোধ জানানো হয়।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাস সংক্রমণ মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়েছে। বাণিজ্যিক নগরী নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন এলাকায় করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। দিন দিন সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে। ইতোমধ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়ে দুজনের মৃত্যু হওয়ায় কয়েকটি এলাকা লকডাউন করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, সিটি এলাকায় ইপিজেড, গার্মেন্টস ও হোসিয়ারিসহ অনেক শিল্প কল-কারখানা রয়েছে। পাশাপাশি চাল, ডাল, আটা, ময়দা, লবণসহ নিত্যপণ্যের পাইকারি বাজার রয়েছে। ফলে এলাকাটি শ্রমিক অধ্যুষিত। এ অবস্থায় ঘনবসতিপূর্ণ এই নগরীতে করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি অত্যাধিক। মানুষের জীবন রক্ষায় পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণপূর্বক সার্বিক বিবেচনায় জরুরি ভিত্তিতে সিটি এলাকা লকডাউন ও কারফিউ জারির জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে অনুরোধ জানিয়েছেন সিটি মেয়র আইভী।

সিটি করপোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেন, নগরে দ্রুতগতিতে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। এজন্য লকডাউন ও কারফিউ জারির জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে অনুরোধ জানানো হয়েছে। অন্যথায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যেতে পারে।

নারায়ণগঞ্জ জেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এক নারীসহ দুজনের মৃত্যু হয়েছে। রোববার পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন মোট ১১ জন। আইসোলেশনে নেওয়া হয়েছে ৬ জনকে। নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ও বন্দর উপজেলার পৃথক তিনটি এলাকা লকডাউন করে দিয়েছে সংশ্লিষ্ট উপজেলা প্রশাসন।