যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় মৃত্যু সাড়ে ৮৮ হাজার ছাড়িয়েছে

যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় মৃত্যু সাড়ে ৮৮ হাজার ছাড়িয়েছে

শেয়ার করুন

 

Corona_usa 2

কার্যকর ভ্যাকসিন না পাওয়ায় এখনো নিয়ন্ত্রণহীন করোনা। যাতে সবচেয়ে বিপর্যয়ে পড়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। প্রতিদিনই নতুন করে হাজার হাজার মানুষ যার শিকার হচ্ছেন, দীর্ঘ হয়েই চলেছে স্বজনহারাদের সংখ্যা।

বাংলাদেশ সময় আজ শনিবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বখ্যাত জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যানুযায়ী, দেশটিতে গত একদিনে ২৪ হাজার ৬৯২ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১৪ লাখ ৮৪ হাজার ২৮৫ জনে পৌঁছেছে। প্রাণ গেছে আরও ১ হাজার ৫৯৫ জনের। ফলে, এখন পর্যন্ত ট্রাম্পের দেশে করোনায় ৮৮ হাজার ৫০৭ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

আক্রান্তের তুলনায় সুস্থতার হার অনেক কম। তার পরও সেখানে পুনরুদ্ধার হয়েছেন ৩ লাখ ২৬ হাজার ২৪২ জন। আক্রান্তদের মধ্যে বর্তমানে আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন ১৬ হাজার ১৩৯ জন।

এর মধ্যে খারাপ অবস্থায় বৃহৎ শহর নিউইয়র্ক। যেখানে এখন পর্যন্ত ২৭ হাজার ৫৭৪ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। আক্রান্ত ৩ লাখ প্রায় ৫৬ হাজার ছাড়িয়েছে। এর পরই রয়েছে নিউ জার্সি। যেখানে ভাইরাসটির হানা দিয়েছে ১ লাখ প্রায় সাড়ে ৪৫ হাজার মানুষের দেহে। যাতে প্রাণ গেছে ১০ হাজার ১৫০ জনের।

আবারও আক্রান্ত বেড়েছে ইলিনয়সে। যেখানে সংক্রমণ ছড়িয়েছে ৯০ হাজারের বেশি মানুষের দেহে। এর মধ্যে না ফেরার দেশে ৪ হাজার ছাড়িয়েছে। একই অবস্থা ম্যাসাসুয়েটস অঙ্গরাজ্যের। যেখানে আক্রান্ত বেড়ে হয়েছে ৮৩ হাজার ৪২১ জনে। মারা গেছে ৫ হাজার ৫৯২ জন।

দেশটিতে আক্রান্তদের মধ্যে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ব্যক্তিগত সহকারীসহ হোয়াইট হাউজের তিন কর্মকর্তাও রয়েছেন। কোয়ারেন্টাইনে গেছেন সংক্রামক ব্যাধি বিশেষজ্ঞ অ্যান্থনি ফাউচিসহ তিনি চিকিৎসক।

এদিকে, প্রাণঘাতী করোনায় বিপর্যয় কাটিয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র আবারও সচল হবে আশা প্রকাশ করেছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ট ট্রাম্প। করোনা ঠেকাতে ভ্যাকসিন আসুক আর না আসুক আমেরিকা সচল হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন তিনি।