মুক্তামনির রোগের ব্যাপারে জানা যাবে আগামি সপ্তাহে

মুক্তামনির রোগের ব্যাপারে জানা যাবে আগামি সপ্তাহে

শেয়ার করুন

মুক্তানিজস্ব প্রতিবেদক :

আগামী সপ্তাহের মধ্যে জানা যাবে শিশু মুক্তামনি কোন রোগে আক্রান্ত। কয়েক ধাপে অস্ত্রোপচারের মধ্য দিয়ে চিকিংসক সামন্ত লাল সেন, তাকে স্বাভাবিক জীবনযাপনে ফিরিয়ে দেওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী। স্বয়ং প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ ও চিকিৎসকদের আন্তরিকতায় সন্তানের সুস্থতার স্বপ্ন দেখছে শিশুটির পরিবার।

কথায় যার মুক্তা ঝরে তার নামই তো মুক্তামনি সাজে। পাশে বসলে মুগ্ধ হয়ে শুধু শুনতেই হয় ওকে। কথা শুনলে কে বলবে ওর শরীরে দানা বেধেছে বিরল এক রোগ। মুক্তামনি জেনে গেছে, ভুল চিকিৎসার কারণে আজ তাকে এমন অসহ্য কষ্ট সহ্য করতে হচ্ছে। তাই বড় হয়ে চিকিৎসক হওয়ার স্বপ্ন তার চোখে, যাতে ভুল চিকিৎসা থেকে সে বাঁচাতে পারে অন্য কাউকে।

গত ১১ জুলাই সাতক্ষীরা থেকে এনে ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে ভর্তির পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মুক্তামনির চিকিৎসার দায়িত্ব নেন। প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ আর  চিকিৎসকদের আন্তরিকতায় খুশি শিশুটির পরিবার। তাই মেয়ের সুস্থতার ব্যাপারে আশাবাদী মুক্তামনির বাবা ইব্রাহিম হোসেন।

চিকিৎসক সামন্ত লাল সেন জানান, শারিরীক পরীক্ষার সবগুলো ফলাফল মঙ্গলবার হাতে পাওয়ার পর আগামী সপ্তাহে তারা নিশ্চিত হতে পারবেন কী রোগে আক্রান্ত মুক্তামনি।

সামন্ত লাল আরও জানান, পর্যবেক্ষণে রাখার মধ্য দিয়ে কয়েক ধাপে অস্ত্রোপচারের পর স্বাভাবিক জীবনযাপন করতে পারবে শিশুটি।

সাতক্ষীরার কামারবাইশালের মুদি দোকানি ইব্রাহিম হোসেনের তিন সন্তানের এক সন্তান মুক্তামনির ডান হাতে দেড় বছর বয়সে একটি টিউমার দেখা দেয়। পরে হাতটি ফুলতে থাকলেও গত আড়াই বছর থেকে তা ভয়ঙ্কর রুপ ধারণ করে।