গ্রেপ্তারের ২০ ঘণ্টা পর থানা থেকে হত্যা মামলার আসামীকে ছাড়, ফের আটক

গ্রেপ্তারের ২০ ঘণ্টা পর থানা থেকে হত্যা মামলার আসামীকে ছাড়, ফের আটক

শেয়ার করুন

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি :

গ্রেফতারের পর ছেড়ে দিয়ে চার ঘণ্টার মাথায় ফের আটক করা হয়েছে সাতক্ষীরার হত্যা মামলার আসামি জামালউদ্দিনকে। বুধবার তাকে আদালতে পাঠানো হয়েছে।
সোমবার সন্ধ্যায় তলুইগাছার মাহাবুবার রহমান হত্যা মামলার  পলাতক আসামি জামালউদ্দিনকে পুলিশ গ্রেফতার করে। কিন্তু তদবির বাণিজ্যের মুখে তাকে ২০ ঘণ্টা পর সাতক্ষীরা সদর থানা থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

পুলিশ জানায় ‘থানায় সার্চিং দিয়ে তার বিরুদ্ধে কোনো মামলা পাওয়া যায়নি। তাকে ভুল তথ্যের ভিত্তিতে আটক করা হয়েছিল’।  তবে মামলার বাদি নিহতের ভাই এড. জিল্লুর রহমান বলেন মামলা সংক্রান্ত সকল কাগজপত্র এমনকি ১৬৪ ধারার জবানবন্দিও জমা দেওয়া হয়েছে সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশের কাছে।

এদিকে সাতক্ষীরার কুখ্যাত চোরাচালানি বিপুল ও বাঁশদহা ইউপি সদস্য আবদুস সামাদের তদবিরে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে জামালউদ্দিনকে মঙ্গলবার  ছেড়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ ওঠে। এ নিয়ে তীব্র সমালোচনার মুখে সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশ  রাতে ফের জামালউদ্দিনকে আটক করেছে।

জানা গেছে, ২০০১ সালের ৪ নভেম্বর সাতক্ষীরা সদর উপজেলার তলুইগাছার খড় বিলের ঘেরে নৃশংসভাবে খুন হন মাহাবুবার রহমান। ১৭ বছর আগের এ মামলার পলাতক আসামি জামালউদ্দিন ভারতে পালিয়ে থাকার পর সম্প্রতি বাড়ি ফিরলে পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়। এ মামলার আরও তিন আসামি এখনও পলাতক।

এ ব্যাপারে সাতক্ষীরা সদর থানার এস আই জিয়ারুল ইসলাম জানান, আমি পুলিশ ফোর্স নিয়ে তাকে আটক করে নিয়ে আসি। পরে তার বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি বিধায় থানা থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছিল। পরে আবার তাকে আটক করা হয়েছে। তবে টাকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়ার বিষয়টি সত্য নয়।